জীবনের গল্পঃ মাত্র ৯ বছর বয়সে তিনি ধর্ষিত হয়েছিলেন...    জীবনের গল্পঃ মাত্র ৯ বছর বয়সে তিনি ধর্ষিত হয়েছিলেন...

বিংশ শতাব্দীর সবচেয়ে ধনী আফ্রিকান আমেরিকান মাত্র ৯ বছর বয়সে ধর্ষিত হয়েছিল !

"Life Is Not A Bed Of Roses". প্রায় সকল সফল ব্যক্তিদের সফলতার পেছনে রয়েছে তাদের ত্যাগ, সংগ্রাম, পরিশ্রম ও অধ্যবসায়ের গল্প। সফল এই মানুষেদের অনেকে আবার জীবনে ব্যর্থও হয়েছেন। কিন্তু তারা কখনো হাল ছাড়েননি, জয় করেছেন পৃথিবীকে। এমনই এক সংগ্রামী নারীর গল্প জানাবো আজ...  

আজকে যার গল্প বলবো তিনি ১৯৮০ এর দশকের মধ্যভাগ হতে বিপুল জনপ্রিয়তা অর্জন করেন।  একই সাথে তিনি একজন মানবহিতৈষী ও গণমাধ্যম ধনকুবের। আন্তর্জাতিকভাবে বিস্তৃত টক শো তাকে একাধিক এমি অ্যাওয়ার্ড এনে দিয়েছে। এই শো' টেলিভিশনের ইতিহাসে সবচেয়ে বেশি প্রচারিত বলে গণ্য। নিজে ম্যাগাজিন প্রকাশের পাশাপাশি তিনি একজন শক্তিমান সাহিত্য সমালোচক এবং অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ড মনোনীত অভিনেত্রী। তার জীবনের শুরুটা ছিল খুবই করুন। চলুন দেখে আসি তার গল্প 

 

ছবিঃ ১

ছবিঃ ১

তিনি মাত্র ৯ বছর বয়সে ধর্ষিত হয়েছিলেন, এই বয়সে হয়ত কেউ জানেই না ধর্ষন মানে কি ! 

ছবিঃ ২

ছবিঃ ২

যেই লোকটি তাঁকে ধর্ষন করেছিলেন সে আইসক্রিমের দোকানে নিয়ে গিয়েছিল, তখনো তাঁর পা দিয়ে রক্ত গড়িয়ে পড়ছিল।

 

ছবিঃ ৩

ছবিঃ ৩

দশ বছর বয়সে, তিনি পরিবারের খুব কাছের আত্মীয় দ্বারা নির্যাতিত হয়েছিলেন, আমরা ভাবতে পারি এই উপমহাদেশেই শুধু আত্নীয় দ্বারা নির্যাতিত হতে পারে !

ছবিঃ ৪

ছবিঃ ৪

মাত্র ১৪ বছর বয়সে গর্ভবতী হয়েছিলেন, বাচ্চার জন্মের আগ পর্যন্ত তিনি তা গোপন রেখেছিলেন।

 

ছবিঃ ৫

ছবিঃ ৫

বাচ্চাটি অপরিপক্ক হয়ে জন্ম নিয়েছিল এবং নানা জটিলতায় মৃত্যুবরণ করেছিল।

 

ছবিঃ ৬

ছবিঃ ৬

তাঁর মা তাঁর ছোট বোনকে ত্যাগ করেছিল এবং এইডস রোগে তাঁর ভাই মৃত্যুবরণ করেছিল।

 

ছবিঃ ৭

ছবিঃ ৭

সেই থেকে, তিনি তাঁর অবস্থার উন্নতির জন্য কঠোর পরিশ্রম শুরু করেন।

 

কিন্তু ২৩ বছর বয়সে চাকরি হারিয়ে আবারও বিপত্তিতে পড়েন। কারণ তাঁর নিয়োগকর্তারা মনে করেছিলেন তিনি গল্পগুলোকে আবেগের সাথে জড়িয়ে নিয়েছেন।

 

ব্যর্থতা থেকে শিক্ষা নিয়ে নিয়ে, ১৯৮৪ সালে  টিভি চ্যানেলে সকালের একটি অনুষ্ঠানের উপস্থাপিকা হিসেবে কাজ শুরু করেন।

 

ছবিঃ ৯

ছবিঃ ৯

দিনরাত পরিশ্রম ও অধ্যবসায়ের দ্বারা, তিনি নিজেকে অপ্রতিদন্ধি হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করেন।

 

ছবিঃ ১০

ছবিঃ ১০

বর্তমানে তিনি প্রায় ২.৯ বিলিয়ন সম্পত্তির মালিক। সবচেয়ে ধনী আফ্রিকান আমেরিকান ও পৃথিবীর ৩২ তম জনপ্রিয় মহিলা। সি এন এন এর মতে, পৃথিবীর সবচেয়ে প্রভাবশালী মহিলা।

 

ছবিঃ ১১

ছবিঃ ১১

তিনি জনপ্রিয় মার্কিন টেলিভিশন ব্যক্তিত্ব অপরাহ উইনফ্রে।বিংশ শতাব্দীর সবচেয়ে ধনী আফ্রিকান আমেরিকান এবং সর্বকালের সেরা আফ্রিকান আমেরিকান মানবহিতৈষী তিনি। পরপর তিন বছর তিনি বিশ্বের অনন্য কালো কোটিপতি হিসেবে বিবেচিত হয়েছেন। কারো কারো মতে তিনি বিশ্বের সবচেয়ে প্রভাবশালী মহিলা। ফোবার্স ম্যাগাজিন কর্তৃক প্রকাশিত ২০০৮ সালের ১০০ জনপ্রিয় প্রভাবশালী ব্যক্তির তালিকায় পর পর ২ বার সর্বোচ্চ স্থান দখল করেন। তিনি পাঁচবার ফোবার্স কর্তৃক বিশ্বের সবচেয়ে প্রভাবশালী মহিলা নির্বাচিত হন।

জীবনে অনেক ঘাত-প্রতিঘাতের মধ্য দিয়ে যেতে হয়েছে তাকে, মুখোমুখি হয়েছেন অনেক উত্থান পতনের। তবুও তিনি জীবন তরী থামিয়ে দেননি, রেখেছিলেন চলমান। তাই তো তিনি পৌঁছাতে পেরেছেন সাফল্যের চূড়ায়। অধিকাংশ মানুষ জীবনের প্রতিটি ব্যর্থতায় একটা অজুহাত দাঁড় করায়। তিনি হাল ছাড়েননি; জয় করেছেন।



জনপ্রিয়