নীতা আম্বানি রিলায়েন্স ফাউন্ডেশনের একজন প্রতিষ্ঠাতা এবং চেয়ারপারসন। যিনি একাধারে একজন মানব দরদী, ব্যবসায়িক ব্যক্তিত্ব এবং মুম্বাই ইন্ডিয়ান ক্রিকেট টিমের মালিক। নীতা আম্বানি রিলায়েন্স ফাউন্ডেশনের একজন প্রতিষ্ঠাতা এবং চেয়ারপারসন। যিনি একাধারে একজন মানব দরদী, ব্যবসায়িক ব্যক্তিত্ব এবং মুম্বাই ইন্ডিয়ান ক্রিকেট টিমের মালিক।

ভারতের শীর্ষ ধনী মুকেশ আম্বানির পত্নী নীতা আম্বানির বিলাসিতা আপনাকে অবাক করবে!

ভারতের অন্যতম শীর্ষ ধনী মুকেশ আম্বানি কে আমরা সবাই কম বেশি জানি। আমরা এ ও জানি যে তিনি ভারতের টেলিকমিউনিকেশন কোম্পানি রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রিজের চেয়ারম্যান। তার নিট সম্পত্তির পরিমাণ ৩৮ বিলিয়ন মার্কিন ডলারের চেয়েও বেশি‌ যার ফলে তিনি বিশ্বের শীর্ষ ধনীদের মধ্যে অন্যতম। ভারতের সবচাইতে ধনী ব্যক্তির স্ত্রী নীতা আম্বানিকে ভারতের সবচাইতে ধনী নারী হিসেবে গণ্য করা হয়।

 

Ambani family/ForbesIndia

Ambani family/ForbesIndia

 

নীতা আম্বানি রিলায়েন্স ফাউন্ডেশনের একজন প্রতিষ্ঠাতা এবং চেয়ারপারসন। যিনি একাধারে একজন মানব দরদী, ব্যবসায়িক ব্যক্তিত্ব এবং মুম্বাই ইন্ডিয়ান ক্রিকেট টিমের মালিক। যার এত কিছু রয়েছে তার জীবন নিশ্চয়ই অন্য সাধারণ ধনী মানুষের মতো হবে না?

 

Mukesh Ambani and Nita Ambani/Successstory

Mukesh Ambani and Nita Ambani/Successstory

 

হ্যাঁ বন্ধুরা আপনারা ঠিকই ধরেছেন নীতা আম্বানির লাইভ স্টাইল সত্যিই অত্যন্ত রাজকীয়। অনেক মানুষই জানেন না যে নীতা আম্বানি প্রতিদিন কি ধরনের মূল্যবান সামগ্রী ব্যবহার করেন এবং সেগুলোর পেছনে তিনি কত খরচ করেন? চলুন জানা যাক ভারতের শীর্ষ ধনীর স্ত্রী নীতা আম্বানির দৈনন্দিন জীবনযাপন সম্পর্কে কিছু চমকপ্রদ তথ্য। 

 

Nita Ambani/Vogue

Nita Ambani/Vogue

 

১. নীতা আম্বানির দিন শুরু হয় এক কাপ চা দিয়ে যার মূল্য ভারতীয় মুদ্রায় ৩ লাখ রুপি। জাপানের সবচাইতে প্রাচীন চিনা মাটির তৈরি জিনিসপত্র তৈরিকারক ব্র্যান্ড নরিটেক্সের কাপে তিনি এই চা পান করেন। মূলত চায়ের দাম তো এত হয় না, যে চায়ের কাপে তিনি চা খান সে কাপটি ব্যবহার করতে তাঁকে এই বিশাল অর্থ খরচ করতে হয়।

 

Laughingcolors

Laughingcolors

 

২. নীতা হাতঘড়ির একজন প্রচন্ড ভক্ত। তিনি শুধুমাত্র চেনাজানা ব্র্যান্ডগুলোকে ব্যবহার করেন না বরং বুলগারি, কার্টিয়ার, রাডো গুচি, কেলভিন ক্লেইধ এবং ফসিল নামক অতি বিলাসবহুল ঘড়ি ব্যবহার করে থাকেন। এ সকল ঘড়ির সর্বনিম্ন মূল্য শুরু হয় ১ লাখ রুপি থেকে। নীতা আম্বানির কাছে রয়েছে এ সকল নামিদামি ব্র্যান্ডের ঘড়ির বিশাল সংগ্রহ।

 

Wikimedia

Wikimedia

 

৩. নীতা হাত বেগের ও একজন একচ্ছত্র ভক্ত। নীতা আম্বানির হাত ব্যাগ এর কালেকশনে রয়েছে পৃথিবীর সবচাইতে দামি হাতব্যাগ সমূহ যা আপনি ভাবতেও পারবেন না। নীতা আম্বানির রয়েছে পৃথিবীর সবচাইতে দামি ব্র্যান্ড স্নেল, গয়ার্ড এবং জিমি চু কোম্পানির হাত ব্যাগ। তার প্রতিটি হাতব্যাগই মূল্যবান হীরা খচিত। বেশ কিছু অনুষ্ঠানে তাঁকে দেখা গিয়েছে অতি বিলাসবহুল হাত ব্যাগ তৈরি কারক প্রতিষ্ঠান যুদিথ লেইবারস গণেশের হাত ব্যাগ ব্যবহার করতে। যার এক একটি হাত ব্যাগের মূল্য ভারতীয় মুদ্রায় ৩-৪ মিলিয়ন রুপি।

 

Pinterest

Pinterest

 

তার প্রতিটি হাতব্যাগই মূল্যবান হীরা খচিত। বেশ কিছু অনুষ্ঠানে তাঁকে দেখা গিয়েছে অতি বিলাসবহুল হাত ব্যাগ তৈরি কারক প্রতিষ্ঠান যুদিথ লেইবারস গণেশের হাত ব্যাগ ব্যবহার করতে। যার এক একটি হাত ব্যাগের মূল্য ভারতীয় মুদ্রায় ৩-৪ মিলিয়ন রুপি।

 

www.entertales.com

www.entertales.com

 

৪. নীতা আম্বানির অতি রুচিশীল জুতা খুব পছন্দ করেন। নীতা আম্বানির একটি বিশেষ বৈশিষ্ট্য হচ্ছে তিনি তার পরিধেয় বস্ত্রের মত এক জোড়া জুতা কখনোই দ্বিতীয়বার পরেন না। তিনি পেড্রো, গ্রেসিয়া, জিমি চু, পেলমোধা, মারলিনস অত্যন্ত বিলাসবহুল ব্র্যান্ডের জুতা পরিধান করেন যে সকল জুতার এক জোড়ার দাম প্রায় এক মিলিয়ন ভারতীয় মুদ্রার সমান।

 

Indiaonline

Indiaonline

 

নীতা আম্বানির অতি বিলাসবহুল জীবন কেমন লাগলো বন্ধুরা? আপনাদের মূল্যবান অভিমত জানানোর আবেদন রইল। ভালো লাগলে লাইক ও শেয়ার দিয়ে সাথেই থাকুন.... 



জনপ্রিয়