জেনে নিন ঝুড়ি ব্যাগের বিভিন্ন ধরনের ব্যবহার জেনে নিন ঝুড়ি ব্যাগের বিভিন্ন ধরনের ব্যবহার

জেনে নিন ঝুড়ি ব্যাগের বিভিন্ন ধরনের ব্যবহার

সাধারণত টেবিলে ফলমূল রাখতে ঝুড়ির ব্যবহার হয়। কিন্তু ঝুড়ি ব্যাগ কি কাজে ব্যবহার করা যায় তা জানা থাকলে বিভিন্ন কাজে সুবিধা পাওয়া যায়। মেয়েদের হাতের ব্যাগের বদল নিয়মিতই দেখা যায়। সে ফ্যাশনের বদৌলতৈই এখন অনেকে শখ করে ব্যবহার করছে একটু ভিন্ন ধরনের হাতলওয়ালা ঝুড়ি ব্যাগ। অফিসে খাবার নিতে, বাজার করতে বা ঘোরাঘুরি—নানা কাজেই এমন ব্যাগ ব্যবহার করা যায়।

মূলত এসব ঝুড়িব্যাগ বানাতে পুরোনো বাঁশ, বেত, হোগলাপাতা, খেজুরপাতা প্রভৃতি ব্যবহৃত হয়। এ ছাড়াও পুরোনো কাপড় পেঁচিয়েও তৈরি হচ্ছে এক রকমের সুন্দর ঝুড়ি বা ঝুড়ি ব্যাগ।

পুরোনো গোল ঝুড়ির বদলে এখন নানান আকার-আকৃতি ও নকশার ঝুড়ি দেখে যায় শৌখিন মানুষদের ঘরে। এসব ব্যাগের কোনোটা চ্যাপ্টা বাজারের ব্যাগের মতো, আবার কোনোটা চৌকো আকারের। আবার কোনো কোনো ঝুড়ির গায়ে ফুটে আছে ফুল, লতাপাতার বাহার। ঝুড়ি ধরার হাতলেও রয়েছে বৈচিত্র্য। ত্রিভুজাকৃতি, গোল রিংয়ের মতো, রেললাইনের মতো দুপাশে দুটো সোজা বাঁশ বা বেতের হাতল।

খাওয়ার টেবিলে বা রান্নাঘরের আলু, পটোল, শাকসবজি রাখা ছাড়াও এটি এখন অফিসে বা পিকনিকে, আত্মীয়ের বাড়ি খাবার দেওয়া-নেওয়াতে ব্যবহৃত করে অনেকে। বেড়াতে গেলে শুকনো খাবার ও প্রয়োজনীয় জিনিস রাখার জন্য সঙ্গে রাখতে পারেন এমন ঝুড়ি ব্যাগ।

দেশীয় ও প্রকৃতি থেকে সংগ্রহ করা বাঁশ, বেত, পাট, হোগলাপাতা, খেজুরপাতার তৈরি এসব ঝুড়ি দেখতে সুন্দর ও আধুনিক। এর ব্যবহারে বেশ একটা আভিজাত্যও ফুটে ওঠে এবং ঘরে সাজের জন্য রাখলে তাতে আনে ভিন্ন মাত্রা।

ঝুড়ি ব্যাগ নিয়ে বাজারেও যেতে পারেন। দেখতে চমৎকার এই ব্যাগে ভরে আনতে পারবেন ছোট সংসারের প্রয়োজনীয় সদাইপাতি। বন্ধুদের আড্ডা বা বেড়াতে যাওয়ার সময় রাখতে পারেন ঝুড়ি ব্যাগ। বাঁশ বা হোগলাপাতার এসব ব্যাগ মাটি বা পানিতে নষ্ট হওয়ার ভয় থাকবে না।

এছাড়াও এসব ঝুড়ি ব্যাগের দাম তেমন বেশি না। ডিজাইন ও সাইজের ওপর নির্ভর করে এসব ঝুড়ির দাম পড়ে সাধারণত ১৫০ থেকে ২ হাজার টাকা পর্যন্ত।

আপনার মূল্যবান মতামত কমেন্টে জানাতে ভুলবেন না। সাথে থাকার জন্য ধন্যবাদ... 



জনপ্রিয়