এই অদ্ভুত তথ্য গুলো জানার পর মনে হবে আপনি নতুন এক দুনিয়ার কথা শুনছেন !    এই অদ্ভুত তথ্য গুলো জানার পর মনে হবে আপনি নতুন এক দুনিয়ার কথা শুনছেন !

এই অদ্ভুত তথ্য গুলো জানার পর মনে হবে আপনি নতুন এক দুনিয়ার কথা শুনছেন !

আমাদের দুনিয়া চমৎকার এবং মাঝে মাঝে অপ্রত্যাশিত সব তথ্যে ভরপুর। যেমন নেপোলিয়নকে একবার একদল খরগোশ আক্রমণ করেছিল, কখনও কি ভেবেছেন কোন কুকুর একটা শহরের মেয়র হতে পারবে? এই তথ্যগুলো আপনার সাধারণ জ্ঞানই বাড়াবে না, আপনাকে বেশ আনন্দও দিবে!  আমরা আপনাদের জন্য এমন সব তথ্য নিয়ে হাজির হয়েছি যেগুলো জানার পর মনে হবে আপনি নতুন এক দুনিয়ার কথা শুনছেন। 

 

একসময় বাকিংহাম প্রাসাদে এক বালক খুঁজে পাওয়া যায়, যে কিনা প্রাসাদে বাস করতো এবং রানীর অন্তর্বাস চুরি করতো! ১৮৩৮ সালের ১৪ ডিসেম্বর, বাকিংহাম প্রাসাদের একজন নৈশপ্রহরী একটা নির্জন কক্ষ থেকে আবিষ্কার করেন ময়লা কাপড় পরা এক বালককে। সে দুটি প্যান্ট পরিহিত ছিল এবং প্যান্টের পকেট ভর্তি ছিল রানী ভিক্টোরিয়ার অন্তর্বাস। 

© scalarchives   © wikimedia

© scalarchives © wikimedia

পরে জানা যায় সে প্রাসাদের নানা স্থানে লুকিয়ে লুকিয়ে ছিল, কখনও চিমনির মধ্যে, কখনও আসবাবের নিচে, এবং রাতের বেলা সে প্রাসাদে হেঁটে বেড়াতো। যখন তার খুদা লাগতো সে রান্নাঘর থেকে খাবার নিয়ে খেতো, এমনকি মাঝে মাঝে লন্ড্রিতে নিজের কাপড়ও ধুইয়েছে! সে একবছর এভাবে প্রাসাদে বাস করতে সক্ষম হয়েছিল!

 

মানবশিশুর কান্নার শব্দের কম্পাংক সীমা প্রাণীদের বাচ্চার কম্পাংক সীমার মধ্যেই থাকে। এমন ঘটনা অনেক স্তন্যপায়ী প্রাণীদের মধ্যেই দেখা যায়, মানুষের মধ্যেও। যখনই আমরা কোন সদ্যজাত শিশুর কান্নার শব্দ শুনি হোক সেটা বেড়ালের কিংবা কুকুরের, আমাদের মগজ সক্রিয় হয়ে উঠে এবং সেটাকে সাহায্যের জন্য ছুটে যেতে চায়!

© depositphotos   © depositphotos

© depositphotos © depositphotos

 

আপনি জীবিত কিংবা মৃত যাই হোন না কেন, ফ্রান্সের সীমান্ত পেরুতে আপনার পাসপোর্ট লাগবে!  এ কারণেই মিশর সরকারকে ফারাও ২য় রামিসীসের পাসপোর্ট বানাতে হয় যাতে করে তারা রামেসীসের শরীর ফ্রান্সে সংরক্ষণ করতে নিয়ে আসতে পারে। মজার কথা হলো ফ্রান্সে সেই শরীর আসার পরে ফ্রান্স সরকার পুর্ণ সম্মানের সাথে তাকে বরণ করে নেয়!

© facebook / @Archaeology News

© facebook / @Archaeology News

 

জিহ্বা হচ্ছে আপনার দেহের সবচেয়ে শক্তিশালী পেশী। এর পরই সবচেয়ে শক্তিশালী পেশী হচ্ছে মাসিটা অর্থাৎ গালের পেছনের দিকের পেশী।

 

আপনাকে যদি একটা গ্লাসে সবুজ রঙের কোকাকোলা আরেকটা গ্লাসে লাল রঙের কোকাকোলা খেতে দেয়া হয়, তাহলে কোনটা খাবেন আপনি? অবশ্যই লালটা। কিন্তু আপনি কি জানেন? আসল কোকাকোলা সেই সবুজ রঙেরটাই। রঙ মেশানোর পর তা লাল রঙ ধারণ করে।

 

আমাদের অনেকেরই মাছের গন্ধ একদম সহ্য হয় না। কিন্তু বেশিরভাগ লিপস্টিকের উপাদানেই কিন্তু মাছের আঁশ মেশানো থাকে!

 

মানুষের হাতের আঙ্গুলের মতই দুজন মানুষের জিহ্বার ছাপও কখনো মিলবে না।

 

থ্রি ইডিয়টস ছবির ভাইরাসের মত লিওনার্দো দ্য ভিঞ্চিও এক হাত দিয়ে ছবি আঁকতেন এবং আরেক হাত দিয়ে লিখতে পারতেন!

 

পৃথিবীই একমাত্র গ্রহ, যার নাম কোনো দেবতার নামানুসারে করা হয়নি।

 

ডলফিনকে মানুষের মতই বুদ্ধিমান বলে গণ্য করা হয়। দুটি ডলফিনকে যদি নিজেদের মাঝে ফোনালাপ করতে দেয়া হয়, তাহলে তারা যে শুধু তা করতে পারবে তাই নয়, বরং একে অপরের আওয়াজও চিনতে পারবে।

 

মানুষের মস্তিষ্ক যে পরিমাণ বিদ্যুৎ উৎপাদন করতে পারে, তাতে একটি ৬০ ওয়াটের বাল্ব জ্বালানো সম্ভব।

 

পেঙ্গুইনের চোখের উপরে একটা অঙ্গ থাকে যার মাধ্যমে তারা নোনা পানিকে মিঠা পানিতে পরিণত করে।

 

ফেসবুক মালিক মার্ক জুকারবার্গ রাশিয়ায় গিয়ে একটি টিভি চ্যানেলের সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, তিনি কালার ব্লাইন্ড বা বর্ণান্ধ ৷ লাল, সবুজ রং তার চোখে ধরে না৷ তার চোখে নীলই হল সেরা রং

 

ফ্রান্সে মৃত্যু পরবর্তী বিয়ে করা অর্থাৎ যেখানে বর কণের যেকোন একজন মৃত, তেমন বিয়ের বৈধতা আছে। এমন বিয়ের দেখা আপনি চীন এবং সুদানেও পাবেন। বিংশ শতকে এসেও এমন কয়েক ডজন বিয়ের আবেদন জমা পড়ে এবং বেশ কয়েকটা অনুমোদনও পায়।

© Corpse Bride/Warner Bros. Pictures   © FotoshopTofs/pixabay.com

© Corpse Bride/Warner Bros. Pictures © FotoshopTofs/pixabay.com

 

উট পাখির চোখের আকার বিলিয়ার্ড বলের সমান। তাদের চোখ এতো বড় যে তার মগজও এর চেয়ে আকারে ছোট দেখা। চোখ তার মগজের দুইগুণ ওজনের হয়।

© ulleo/pixabay.com   © William Warby

© ulleo/pixabay.com © William Warby

 

উৎসব করে খরগোশ শিকারে বের হয়েছিলেন মহান শাসক নেপোলিয়ন । এক পর্যায়ে খরগোশেরা ঐক্যবদ্ধ হয়ে তাদের আক্রমণ করে। প্রথমে তারা ঠেকাতে চেষ্টা করলেও পরে অবস্থা বেগতিক দেখে নেপোলিয়ন পালিয়ে বাঁচতে চাইলেন। শুনে হাস্যকর মনে হলেও একবার কল্পনা করুন তো ঘটনাটা।

© alayna11/pixabay.com   © wikipedia.org

© alayna11/pixabay.com © wikipedia.org


 

বোনাস

© beckrmz/instagram   © outfitmemoir/instagram

© beckrmz/instagram © outfitmemoir/instagram

এই পরীক্ষার নাম ফিঙ্গার ট্রাপ টেস্ট, যা ইন্টারনেটে ঝড় তুলেছে। এর মাধ্যমে একটা মানুষ কত সুন্দর তা নির্ধারন করা হয়। আপনি আপনার তর্জনী আপনার চিবুক এবং ঠোট বরাবর রাখবেন। ''শশশ'' বলার চেষ্টা করলে আপনার ঠোট যদি আপনার আঙ্গুল স্পর্শ করে তবেই আপনি সুন্দর আর যদি স্পর্শ না করে তবে আপনি সৌন্দর্য মাপকাঠি ছুতে ব্যর্থ হয়েছেন। আপনি স্পর্শ করতে না পারলেও আশা করি আপনার মজাটা বোঝার ক্ষমতা আছে, কারণ এটাও ইন্টানেটের অন্য ভাইরাল চ্যালেঞ্জগুলোর একটা।

 

কোন ঘটনাটি আপনার কাছে সবচেয়ে ভালো লেগেছে আমাদের কমেন্টে জানাতে ভুলবেন না। আপনার আশে পাশের যে কোন ভালো কিংবা মজার ছবি যদি আমাদের মাধ্যমে পেইজে অথবা আর্টিকেলে শেয়ার করতে চান তাহলে আমাদের ফাঁপরবাজ পেইজের ইনবক্সে ছবিটি কোথায় উঠানো এবং কে উঠিয়েছেন এই তথ্য সহ মূল ছবিটি পাঠাতে পারেন, পরবর্তিতে আমরা আপনার তোলা ছবি সবার সাথে শেয়ার করব। সাথে থাকার জন্য ধন্যবাদ



জনপ্রিয়