পৃথিবী ধ্বংস নিয়ে ভয়ানক কিছু ভবিষৎবাণী!  পৃথিবী ধ্বংস নিয়ে ভয়ানক কিছু ভবিষৎবাণী!

পৃথিবী ধ্বংস নিয়ে ভয়ানক কিছু ভবিষৎবাণী!

যখন কেউ পৃথিবীর শেষ সময়ের কথা উল্লেখ করে, তখন সাধারণত এটি একটি আনন্দের বিষয় নয়। তবুও বিজ্ঞানীরা, ধর্মীয় নেতারা এবং বিশ্ব বিশেষজ্ঞরা পৃথিবীর শেষ সময় নিয়ে ভবিষ্যৎ বাণী দিয়ে গেছেন এবং এখনো করছেন।  

আজকে আমরা পৃথিবীর শেষ সময়ের এমনি কতকগুলো ভবিষ্যৎ বাণী সম্পর্কে আপনাদের জানাবো।

 

১. ডব্লিউআর ১০৪ বিস্ফোরণ

Source: https://www.space.com/5081-real-death-star-strike-earth.html

Source: https://www.space.com/5081-real-death-star-strike-earth.html

বিজ্ঞানীরা সতর্ক করেছেন যে, যদি ডব্লিউআর ১০৪ নক্ষত্র একটি সুপারনোভাতে বিস্ফোরিত হয়, তাহলে সেই গামা রশ্মি পৃথিবীতে আঘাত করতে পারে এবং এর ফলে বায়ুমন্ডলের ওজোনস্তরের একটি অংশ ধ্বংস হয়ে যেতে পারে।

 

২. সুপার-আগ্নেয়গিরি

Source: https://www.geolsoc.org.uk/Education-and-Careers/Resources/Papers-and-Reports/~/media/shared/documents/education%20and%20careers/Super_eruptions.ashx

Source: https://www.geolsoc.org.uk/Education-and-Careers/Resources/Papers-and-Reports/~/media/shared/documents/education%20and%20careers/Super_eruptions.ashx

ভূতাত্ত্বিক সোসাইটি অনুমান করেন যে, এক মিলিয়ন বছরের মধ্যে পৃথিবীতে মহা-আগ্নেয়গিরির অগ্ন্যুৎপাত ঘটবে। এটি ৩,২০০ কিলোমিটার তীব্র গতিতে নির্গত হবে। এটি ৭৫০০০ বছর আগে সংঘটিত একটি ঘটনার সাথে তুলনাযোগ্য হবে, যা ছয় থেকে দশ বছর ধরে আগ্নেয়গিরির সৃষ্টি করেছিল।

 

৩. আইজ্যাক নিউটনের ভবিষ্যদ্বাণী

Source: https://nypost.com/2018/09/01/isaac-newton-predicted-the-world-will-end-in-2060/

Source: https://nypost.com/2018/09/01/isaac-newton-predicted-the-world-will-end-in-2060/

গণিতবিদ, পদার্থবিজ্ঞানী ও দার্শনিক আইজ্যাক নিউটন বিশ্বাস করেন যে, বাইবেল সম্পর্কে ব্যাপক গবেষণা করার পর এটা মনে হয়েছে যে এই বিপর্যয়মূলক যুদ্ধগুলো শেষ পর্যন্ত ২০৬০ সালে পৃথিবীকে ধ্বংস করবে। তবে, তিনি বিশ্বাস করেছিলেন যে ঈশ্বর নতুন করে পৃথিবী তৈরি করবেন এবং নতুন ঐশ্বরিক যুগের সূচনা হবে।

 

৪. রোবট

Source: http://www.mirror.co.uk/tech/this-new-form-life-stephen-11453107

Source: http://www.mirror.co.uk/tech/this-new-form-life-stephen-11453107

যদিও বিজ্ঞান কথাসাহিত্য লেখক বলছেন যে, রোবট কয়েক বছর পর বিশ্বকে নিয়ন্ত্রণ করবে। পদার্থবিজ্ঞানী স্টিফেন হকিং দাবি করেছিলেন যে এটা হাস্যকর কোন বিহশয় নয় এবং এটি আসলেই বাস্তবে রূপায়িত হবে। তিনি বলেছিলেন, যদি কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা নিজেই প্রতিলিপি করে তবে অবশেষে এটি মানবতার উপর প্রভাব ফেলবে এবং আমাদের নিশ্চিহ্ন করবে।

 

৫. এমআইটি পূর্বাভাস

Source: https://motherboard.vice.com/en_us/article/43e8yp/the-uns-devastating-climate-change-report-was-too-optimistic, https://bigthink.com/paul-ratner/in-1973-an-mit-computer-predicted-the-end-of-civilization-so-far-its-on-target

Source: https://motherboard.vice.com/en_us/article/43e8yp/the-uns-devastating-climate-change-report-was-too-optimistic, https://bigthink.com/paul-ratner/in-1973-an-mit-computer-predicted-the-end-of-civilization-so-far-its-on-target

১৯৭৩ সালে এমআইটি ‘ওয়ার্ল্ড ওয়ান’ নামে একটি কম্পিউটার প্রোগ্রাম তৈরি করেছিল যা পৃথিবীর ধ্বংস নিয়ে ভবিষ্যদ্বাণী দিতে সহায়তা করবে। এটি দূষণের মাত্রা, জনসংখ্যা বৃদ্ধি, প্রাকৃতিক সম্পদ এবং জীবনের গুণমানের মতো তথ্যগুলো ব্যবহার করে। এটি ভবিষ্যদ্বাণী করেছে যে, ২০২০ সালের মধ্যে সভ্যতার অবসান ঘটবে এবং নিচের দিকে ধাবিত হতে শুরু করবে।

 

৬. সূর্যের উজ্জ্বলতা

Source: https://www.biogeosciences-discuss.net/2/1665/2005/bgd-2-1665-2005.pdf

Source: https://www.biogeosciences-discuss.net/2/1665/2005/bgd-2-1665-2005.pdf

বিজ্ঞানীরা ভবিষ্যদ্বাণী করেন যে সূর্যের ক্রমবর্ধমান উজ্জ্বলতা পৃথিবীর কঠিন আবরণকে বাধা দেবে এবং সব গাছপালা নিশ্চিহ্ন করতে যথেষ্ট পরিমাণ কার্বন ডাই অক্সাইড ছড়াবে এবং মানুষ ও প্রাণী বিলুপ্ত হয়ে যাবে। কিন্তু মনে রাখবেন, এটা বলা হয়নি যে এই ঘটনাটা ৫০০ মিলিয়ন বছর পর ঘটবে ।

 

৭. মহামারী

Source: https://www.businessinsider.com/bill-gates-warns-the-next-pandemic-disease-is-coming-2018-4

Source: https://www.businessinsider.com/bill-gates-warns-the-next-pandemic-disease-is-coming-2018-4

বিল গেটস সতর্ক করেছেন যে পরের ফ্লু মহামারিটি কোণঠাসা অবস্থায় রয়েছে এবং আমরা এটার জন্য প্রস্তুত নই। মানব জনসংখ্যা বৃদ্ধির সাথে সাথে অস্ত্রোপচারের রোগগুলি আরও ব্যাপক হবে, তিনি ভবিষ্যদ্বাণী করেছিলেন যে আমরা যদি কিছু না করি, তবে প্রথম ৬ মাসের মধ্যেই ৩০ মিলিয়ন মানুষ মারা যাবে এবং এটিই কেবল শুরু।  

 

৮. জাতি সংঘের পূর্বাভাস

Source: https://www.theguardian.com/environment/2018/oct/08/global-warming-must-not-exceed-15c-warns-landmark-un-report

Source: https://www.theguardian.com/environment/2018/oct/08/global-warming-must-not-exceed-15c-warns-landmark-un-report

সম্প্রতি জাতিসংঘ বিজ্ঞানীরা একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছেন যে, জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে অপরিবর্তনীয় এবং বিপর্যয়মূলক ঘটনা সংঘটিত হওয়ার আগে ১২ বছর ধরে কাজ করে বিশ্বের কার্বন ডাই অক্সাইড এর পরিমাণ কমিয়ে আনতে হবে। ১২ বছরের মধ্যে যদি কার্বন ডাই অক্সাইডের পরিমাণ কমানো না যায় তাহলে অত্যধিক তাপ, বন্যা এবং দুর্ভিক্ষসহ আরো রোগ ছড়িয়ে পড়বে, বাজারকে অস্থিতিশীল করবে এবং সারা বিশ্বজুড়ে দুর্ভিক্ষ দেখা দিবে।

 

৯. উপগ্রহ

Source: https://nickbostrom.com/existential/risks.html

Source: https://nickbostrom.com/existential/risks.html

অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক নিক বস্ট্রোমের মতে, পৃথিবীর সাথে সংঘর্ষে একটি গ্রহাণু মানুষের জীবন বিলুপ্ত করার জন্য মাত্র ১ কিলোমিটার ব্যাসই যথেষ্ট। তিনি অনুমান করেন যে এমন একটি উপগ্রহ পৃথিবীকে প্রতি ৫০০,০০০ বছরে একবার আঘাত করে।  

 

১০. সৌর অগ্নিতরঙ্গ

Source: https://www.dailymail.co.uk/sciencetech/article-4161180/NASA-prediction-doomsday-solar-storms.html

Source: https://www.dailymail.co.uk/sciencetech/article-4161180/NASA-prediction-doomsday-solar-storms.html

বৃহদায়তন সৌর অগ্নিতরঙ্গগুলির মধ্যে বিদ্যুৎ গ্রিডগুলি বন্ধ করার ক্ষমতা রয়েছে, যা লম্বা দীর্ঘস্থায়ী ব্লাউআউট তৈরি করে যা সম্ভবত ৪১.৫ বিলিয়ন মার্কিন ডলার খরচ করতে পারে। বৈদ্যুতিক গ্রিড নিচে হওয়ার সাথে সাথে অর্থনীতি ব্যাপকভাবে অস্থিতিশীল হবে।    

 

১১. সুপারহিউম্যান

Source: https://www.usatoday.com/story/news/nation-now/2018/10/15/stephen-hawking-warns-superhumans-ai-posthumous-book/1645963002/

Source: https://www.usatoday.com/story/news/nation-now/2018/10/15/stephen-hawking-warns-superhumans-ai-posthumous-book/1645963002/

এছাড়াও স্টিফেন হকিং ভবিষ্যদ্বাণী করেছিলেন যে জিনোম ম্যানিপুলেশনয়ের বিকাশের ফলে পুরো সুপারহিউম্যান প্রজন্মের সৃষ্টি হতে পারে। তিবি দাবী করেছিলেন যে, সম্ভবত তাদের নিজস্ব ডিএনএ এবং তাদের সন্তানদের ডিএনএ যোগ করবে, অন্যদেরকে অচল করে দিবে।  

 

১২. পারমাণবিক যুদ্ধ

Source: https://qz.com/1370887/a-book-predicts-trumps-nuclear-war-with-north-korea/

Source: https://qz.com/1370887/a-book-predicts-trumps-nuclear-war-with-north-korea/

পারমাণবিক যুদ্ধের ফলাফল শূন্য হবে। একবার একটি বোমা বিস্ফোরিত হওয়ার পর অন্যরাও তা অনুসরণ করবে,  যার ফলে জীবনে বিধ্বংসী ক্ষতি হবে এবং পরিবেশের বিপর্যয় ঘটবে। অন্ধকার জগতে বাঁচতে হবে। অনেকেই ভবিষ্যদ্বাণী করেছেন যে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র এবং রাশিয়া, চীন এবং উত্তর কোরিয়া যে পারমানবিক যুদ্ধটি করতে যাচ্ছে তা এই ভবিষ্যৎ বাণীকে হয়তো বাস্তবে রূপায়িত করবে।

 

১৩. তথ্য রহস্যোদ্ঘাটন

Source: https://www.buzzfeednews.com/article/charliewarzel/the-terrifying-future-of-fake-news

Source: https://www.buzzfeednews.com/article/charliewarzel/the-terrifying-future-of-fake-news

২০১৬ সালের শুরুর দিকে আভিভ ওভাদিয়া এই ভুয়া খবরের উভয়সঙ্কটকে ভবিষ্যদ্বাণী করেছিলেন যা রাজনৈতিক ও সংবাদ জগতকে হুমকিস্বরূপ করেছিল। এখন তিনি ভবিষ্যদ্বাণী করছেন যে নতুন, সহজে প্রবেশযোগ্য সরঞ্জামগুলো লোকেদের অনেক বেশী জালিয়াতি করতে দেবে, যা বাস্তবসম্মত অডিও এবং মানুষের দৃশ্যমান মিডিয়া বা রাজনীতিবিদেরা তাদের ইচ্ছেমতো কথা বলবে। এভাবেই পৃথিবী ধ্বংসের আরম্ভ ঘটবে।

 

১৪. হ্যাড্রন কলাইডার

Source: https://www.express.co.uk/news/weird/694392/Will-Large-Hadron-Collider-destroy-Earth-CERN-admits-experiments-could-create-black-holes

Source: https://www.express.co.uk/news/weird/694392/Will-Large-Hadron-Collider-destroy-Earth-CERN-admits-experiments-could-create-black-holes

হ্যাড্রন কলাইডার সিআরএনএতে কাজরত বিজ্ঞানীরা স্বীকার করেছেন যে এটি কালো গর্ত তৈরি করতে পারে, যদিও তারা দাবি করে এটি সম্পূর্ণ নিরাপদ। ষড়যন্ত্র তত্ত্ববিদরা ভবিষ্যদ্বাণী করেছেন এভাবে, সংঘর্ষকারী পৃথিবীকে গ্রাস করবে এমন একটি অস্থির কালো গর্ত উন্মোচন করবে।  

 

১৫. যিহুদি শেষ সময়ের পূর্বাভাস

Source: https://www.express.co.uk/news/weird/853728/end-of-the-world-rapture-september-23-apocalypse-jewish-prophecy-kim-jong-un

Source: https://www.express.co.uk/news/weird/853728/end-of-the-world-rapture-september-23-apocalypse-jewish-prophecy-kim-jong-un

ইহুদী পণ্ডিত ইসরাইল বেঞ্জামিন ১৮৯৪ সালে প্রকাশিত একটি বইতে ভবিষ্যদ্বাণী করেছিলেন যে ইলুলের ইব্রীয় মাসে সূর্যগ্রহণের সময় এটি শেষ বারের সূচনা হবে। তিনি বলেছিলেন যে, ‘এটি অন্যান্য জাতির জন্য একটি খারাপ চিহ্ন হতে পারে, পূর্বের রাজাদের অনেক ক্ষতিসাধন হবে এবং বিশাল ঘূর্ণিঝড় হবে এবং অসংখ্য প্রাণীর মৃত্যু ঘটবে’।

 

১৬. অতিরিক্ত জনসংখ্যা

Source: https://www.express.co.uk/news/science/877010/end-of-the-world-stephen-hawking-apocalypse-overpopulation-artificial-intelligence

Source: https://www.express.co.uk/news/science/877010/end-of-the-world-stephen-hawking-apocalypse-overpopulation-artificial-intelligence

পৃথিবী শুধুমাত্র অনেকগুলো মানুষকে ধারণ করতে পারে, কিন্তু এটা সত্য যে এটির ধারণক্ষমতা হ্রাস পায়। স্টিফেন হকিংসসহ অন্যান্য বিজ্ঞানীরা পূর্বাভাস দিয়েছেন যে, ৬০০ বছর আগে যেমন পৃথিবী বসবাসের অযোগ্য ছিল, জনসংখ্যা বৃদ্ধির ফলে ঠিক তেমনি অবস্থা হবে পৃথিবীর।

 

১৭. কালো হোল 

Source: https://www.express.co.uk/news/science/834291/Supermassive-black-hole-heading-Earth-s-way-andromeda-milky-way

Source: https://www.express.co.uk/news/science/834291/Supermassive-black-hole-heading-Earth-s-way-andromeda-milky-way

বিজ্ঞানীরা ভবিষ্যৎ বাণী করেছেন যে, বিশাল কৃষ্ণগহ্বর বা ব্ল্যাক হোল পৃথিবীর দিকে ধেয়ে আসবে এবং পৃথিবীকে গ্রাস করবে।

 

১৮. এলিয়েন

Source: https://news.nationalgeographic.com/2018/03/stephen-hawking-controversial-physics-black-holes-bets-science/

Source: https://news.nationalgeographic.com/2018/03/stephen-hawking-controversial-physics-black-holes-bets-science/

কিছু বিশেষজ্ঞরা পূর্বাভাস দিয়েছিলেন যে, আমরা বহিরাগত প্রাণীদের সাথে যোগাযোগ করতে আর মাত্র কয়েকটা বছর পিছনে আছি। যাইহোক, এটা যদি সত্যি হয়ে থাকে তাহলে স্টিফেন হকিং এর মত অনুযায়ী, এটি ভালো ফল বয়ে নিয়ে আসবে না। তারা হয়তো প্রযুক্তগতভাবে উন্নত হবে কিন্তু বিভিন্ন ধরনের রোগ ছড়াতে পারে।

 

১৯. হ্যাকিং

Source: https://www.thesun.co.uk/tech/3548333/how-cyber-attacks-can-crash-economies-destroy-governments-and-bring-society-to-its-knees/

Source: https://www.thesun.co.uk/tech/3548333/how-cyber-attacks-can-crash-economies-destroy-governments-and-bring-society-to-its-knees/

অনেকেই মনে করেন যে, আমাদের নিজেদের দুনিয়াকে আরও সুরক্ষিত করতে যেয়ে এটি আরো দুর্যোগের মুখোমুখি করাতে পারে। প্রযুক্তি বিশেষজ্ঞরা ভবিষ্যদ্বাণী করেছেন যে হ্যাকাররা আরো বাস্তব বুদ্ধিসম্পন্ন হয়ে উঠছে এবং তারা শীঘ্রই অরাজকতা সৃষ্টি করতে পারে।

 

২০. গাণিতিক ভবিষ্যদ্বাণী

Source: https://www.news.com.au/technology/environment/conservation/an-apocalyptic-mass-extinction-which-wipes-out-human-civilisation-will-begin-in-2100-mathematician-predicts/news-story/e2e4752701fa6237788a16b9bca39216

Source: https://www.news.com.au/technology/environment/conservation/an-apocalyptic-mass-extinction-which-wipes-out-human-civilisation-will-begin-in-2100-mathematician-predicts/news-story/e2e4752701fa6237788a16b9bca39216

ভূতাত্ত্বিকবিদ অধ্যাপক ড্যানিয়েল রথম্যান বিশ্বের সম্ভাব্য শেষের একটি পূর্বাভাস দেওয়ার জন্য একটি গাণিতিক সূত্র তৈরি করেছিলেন। এটি নির্ধারণ করে যে মহাসাগরগুলি এতগুলি কার্বন ধারণ করবে যে ভর ২১০০ সালের মধ্যে বিলুপ্ত হবে।

 

২১. আমাদের গ্রহের সাথে অন্য গ্রহের ধাক্কা

Source: https://www.businessinsider.com/how-earth-will-end-apocalypse-2016-11#it-wouldnt-be-unprecedented-about-45-billion-years-ago-a-small-planet-crashed-into-a-larger-planet-in-the-solar-system-forming-earth-and-its-moon-24

Source: https://www.businessinsider.com/how-earth-will-end-apocalypse-2016-11#it-wouldnt-be-unprecedented-about-45-billion-years-ago-a-small-planet-crashed-into-a-larger-planet-in-the-solar-system-forming-earth-and-its-moon-24

বিজ্ঞানীরাও বিশ্বাস করেন যে, পৃথিবীর গ্রহের সংঘর্ষের কারণে আমাদের বিলুপ্তি হতে পারে। একটি দুর্বৃত্ত গ্রহ আমাদের সৌর সিস্টেমে প্রবেশ করে আমাদের সরলরেখা বরাবর পরিচালিত হবে। এটি অভূতপূর্ব নয়, কারণ বিজ্ঞানীরা বিশ্বাস করেন যে কোটি কোটি বছর আগে পৃথিবীতে এটি ঘটেছে এবং এভাবেই চাঁদ গঠন করেছিল।      

 



জনপ্রিয়