জব ইন্টারভিউ টিপস সম্পর্কে প্রত্যেকেরই জানা দরকার

 শিক্ষা জীবন শেষ করে সবাই স্বপ্ন দেখে পছন্দ মতো ক্যারিয়ার গড়ার।  শিক্ষা জীবন শেষ করে সবাই স্বপ্ন দেখে পছন্দ মতো ক্যারিয়ার গড়ার।

আমাদের দেশে ভালো চাকরি পাওয়াটা একটা সোনার হরিণ পাওয়ার মতো অবস্থা হয়ে গেছে। বর্তমান সময়ে অসংখ্য শিক্ষিত বেকারের সংখ্যা অনেক বেশী। শিক্ষা জীবন শেষ করে সবাই স্বপ্ন দেখে পছন্দ মতো ক্যারিয়ার গড়ার। কিন্তু জব ইন্টারভিউয়ের মুখোমুখি হওয়ার সময় অনেকেই মেধাবী হওয়া সত্ত্বেও আত্মবিশ্বাসের অভাবে বা কিছু গুরুত্বপূর্ণ বিষয় সম্পর্কে না জানার কারণে সেই ইন্টারভিউতে টিকতে পারে না।

জব ইন্টারভিউতে কিভাবে আত্মবিশ্বাস বাড়ানো যায় এবং আরো ভালো করা যায় এবং ব্যবস্থাপকদেরকে মুগ্ধ করার জন্য যে গুরুত্বপূর্ণ বিষয়গুলো লক্ষ্য রাখতে হবে তা আপনাদের সাথের শেয়ার করছি। আশা করি, এই জব টিপসগুলো আপনার কাজে আসবে। 

১. সময়ের আগে যতটা সম্ভব অনেক খুঁটিনাটি বিষয় সম্পর্কে আপনার জানা দরকার।  

Andreypopov / Getty ImagesAndreypopov / Getty Images

আপনি যার সাথে সাক্ষাৎ করছেন তাঁর নাম কি? ইন্টারভিউ কি গ্রুপ ইন্টারভিউ হবে নাকি একজন একজন করে হবে? আপনাকে একজন ব্যক্তি নাকি একটি প্যানেল ইন্টারভিউ নিবে? এই প্রাথমিক বিষয়গুলো জানা থাকলে আপনি আত্মবিশ্বাসের সাথে ইন্টারভিউয়ের মুখোমুখি হতে পারবেন।  

২. চমৎকার উত্তরগুলো আগে থেকেই পরিকল্পনা করে রাখুন।

Amanaimagesrf / Getty ImagesAmanaimagesrf / Getty Images

নিরর্থক কথাগুলো বলবেন না বা অযথা বকবক করবেন না। আপনার শখ সম্পর্কে বা বাস্তব অভিজ্ঞতা সম্পর্কে কিছু বলতে পারেন যা আপনার পজিশনের সাথে সম্পর্কিত। কৌতুকপূর্ণ কিছু বিষয় উপস্থাপন করতে পারেন, এতে আপনি স্মরণীয় হয়ে থাকবেন।

৩. একটি আয়নার সামনে দাঁড়িয়ে যান।  

Moodboard / Getty ImagesMoodboard / Getty Images

আপনি মনে করুন যে, একটি আয়নার সামনে আপনাকে প্রশ্ন করা হবে এবং সেই প্রশ্নের উত্তর দেওয়ার সময় আপনার অভিব্যক্তি বা প্রতিক্রিয়া কেমন হতে পারে তা আয়নায় দেখুন। মুখে একটু হাসি, সামান্য মাথা নেড়ে সম্মতি জানানো এবং দৃষ্টি সংযোগ বজায় রাখতে চেষ্টা করুন।

৪. অনুশীলন আর অনুশীলন

Antonioguillem / Getty ImagesAntonioguillem / Getty Images

জব ইন্টারভিউয়ের প্রশ্ন-উত্তরগুলো বিনামূল্যে ডাউনলোড করে সেগুলো অনুশীলন করতে পারেন। একটি ইন্টারেক্টিভ ফরমেটে কঠিন প্রশ্নগুলোর উত্তর বার বার অনুশীলন করুন।

৫. সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতে আপনি যে ছবিটি স্থাপন করেছেন তার জন্য আপনি গর্বিত কিনা তা নিশ্চিত করুন।

Wavebreakmedia Ltd / Getty ImagesWavebreakmedia Ltd / Getty Images

৬. একাধিক কোম্পানি সম্পর্কে তথ্য সংগ্রহ করুন।

Ldprod / Getty ImagesLdprod / Getty Images

গুগল অ্যালার্ট এমন একটি জিনিস, যা আপনি যেকোন সময় একটি নির্দিষ্ট সময়ের জন্য একটি নতুন বিবরণ ইমেইলে প্রকাশিত করতে পারেন। যেসব কোম্পানিতে আপনি ইন্টারভিউ দিয়েছেন তার তালিকা জানার জন্য এখানে যোগ করুন।

 ৭. দিকনির্দেশনা পেতে

Kaspiic / Getty ImagesKaspiic / Getty Images

আপনি যদি জানেন যে, আপনি গুরুত্বপূর্ণ দিনের আগে কোথায় যাচ্ছেন, তাহলে দেরী হওয়ার ব্যাপারে তেমন চিন্তা করার দরকার নেই। এবং আপনার যদি সময় থাকে তাহলে ইন্টারভিউ দেওয়ার কয়েক দিন আগে সেখানে গিয়ে বাইরে থেকে দেখে আসতে পারেন অফিসের অবস্থানটা। এতে আপনি ট্র্যাফিকের অবস্থা সম্পর্কে ধারণা লাভ করতে পারবেন এবং সেই সময় অনুযায়ী আপনি বের হতে পারবেন।  

৮. সময়ের আগে পৌঁছাতে চেষ্টা করুন।

Moodboard / Getty ImagesMoodboard / Getty Images

ইন্টারভিউয়ের প্রায় ১০ মিনিট আগে পৌঁছাতে চেষ্টা করুন।  

৯. ২০ সেকেন্ডের একটি দৃঢ় প্রভাব স্থাপন করুন।

Mike Watson Images / Getty ImagesMike Watson Images / Getty Images

সম্ভাব্য সহকর্মীদের পাশে নীরবে দাঁড়াবেন না। তাঁদের সাথে পরিচিত হোন এবং এমন কিছু কথাগুলো বলবেন যার জন্য তাঁরা আপনাকে মনে রাখবে। আপনি যদি তাঁদের নাম মনে রাখতে পারেন তাহলে এটি একটি বোনাস পয়েন্ট হতে পারে। মাঝেমধ্যে ইমেইলে বা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তাদেরকে অনুসরণ করুন।

১০. বাঁধা সৃষ্টি করবেন না।

Ingram Publishing / Getty ImagesIngram Publishing / Getty Images

যদিও সহজ ও সাধারণ ব্যাপার মনে হয়, কিন্তু ইন্টারভিউয়ের সময় আপনার এদিক ওদিক তাকানো একেবারে ইতিবাচক দিক হতে পারেনা। এমনকি যারা আপনার ইন্টারভিউ নিচ্ছেন তাঁদের সামনে বেশী নড়াচড়া করা বা পা দোলানো একেবারেই  উচিৎ নয়।  

১১. বিশ্বাসের সাথে পোশাক পরিধান করুন।

Bartekszewczyk / Getty ImagesBartekszewczyk / Getty Images

কোম্পানির সংস্কৃতির সাথে পরিচিত হওয়া এবং সেই সংস্কৃতি অনুকরণ করা আপনার ইন্টারভিউয়ের আউটফিটের জন্য সবচেয়ে সুবিধাজনক। আপনি যদি দেখতে পান যে, তাঁরা এতে মানানসই, তাহলে আপনিও ভারসাম্য রক্ষা করে সেইভাবে পোশাক পরিধান করতে পারেন।

১২. প্রত্যেকের সাথে বন্ধুত্বপূর্ণ আচরণ করুন।

Fuse / Getty ImagesFuse / Getty Images

পার্কিং পরিচালক, রিসেপশনিস্ট এবং কার্যালয়ে প্রবেশ করার সময় যে ব্যক্তি অন্তর্ভুক্ত থাকে সবার সাথেই বন্ধুত্বপূর্ণ আচরণ করুন। আপনি যদি সবার সাথে বন্ধুত্বপূর্ণ আচরণ করেন তাহলে প্রত্যেকেই তা লক্ষ্য করবে এবং আপনার প্রশংসা করবে।

১৩. আপনার পানীয়কে অগ্রাহ্য করুন।

James Woodson / Getty ImagesJames Woodson / Getty Images

সাধারণত আপনার এক হাতে যদি আইফোন এবং অন্য হাতে দামী কোন কফি বা পানীয় থাকে, তাহলে ইন্টারভিউয়ের আগে সেই পানীয় ফেলে দেওয়া দরকার। যারা আপনার ইন্টারভিউ নিচ্ছেন, তাঁরা যদি আপনাকে পানি, চা-কফি প্রভৃতি অফার করে থাকে, তাহলে সেটা আপনার ইচ্ছে।  

১৪. সাথে জীবনবৃত্তান্তের হার্ড কপি প্রস্তুত রাখা।

Ivary / Getty ImagesIvary / Getty Images

এটি দেখে মনে হবে আপনি চমৎকার প্রস্তুতি নিয়েছেন, এটি রেফারেন্সের জন্য আপনাকে নির্দিষ্ট পয়েন্ট দেবে এবং ইন্টারভিউয়ার যদি নিজেদের জন্য আপনার জীবনবৃত্তান্তের কপি প্রিন্ট করতে ভুলে থাকেন, তাহলে আপনি আপনার হার্ড কপিটা তাঁদেরকে হস্তান্তর করতে পারেন। 

১৫. আপনার প্রস্তুতিপর্বের কাজগুলো করে নিন।

Moodboard / Getty ImagesMoodboard / Getty Images

আপনি ইন্টারভিউয়ের মুখোমুখি হওয়ার আগে কোম্পানী, পজিশন এবং ইন্টারভিউয়ার সম্পর্কে নিজেই একটু অনুসন্ধান করুন, যাতে আপনি আপনার সুবিধামত কোন প্রশ্ন প্রস্তুত করতে পারেন। তারপর আপনার প্রতিক্রিয়ার মধ্যে অর্জিত তথ্যগুলো যোগ করুন, এতে তাঁরা আপনার জ্ঞান বা প্রতিভা দেখে মুগ্ধ হয়ে যাবেন।

১৬. শক্তি প্রকাশ্যে এবং দুর্বলতাকে কাটিয়ে উঠুন।

Luminastock / Getty ImagesLuminastock / Getty Images

যখন আপনাকে আপনার শক্তি এবং দুর্বলতা সম্পর্কে জিজ্ঞাসা করা হয়, আপনার উত্তরে ইন্টারভিউয়াররা আপনার কাছ থেকে একটি বাস্তব প্রতিক্রিয়া প্রত্যাশা করেন। সুতরাং, যা সত্য তাই প্রকাশ করুন! আপনি কিভাবে আপনার দুর্বলতাকে জয় করেন কেবল সেই উদাহরণগুলো প্রদান করুন। আপনাকে তখন আরো বেশী জেনুইন মনে হবে।  

১৭. আপনিও ইন্টারভিউয়ারদেরকে ভাল প্রশ্নগুলো জিজ্ঞাসা করুন।

Crossstudio / Getty ImagesCrossstudio / Getty Images

সম্ভাব্য বেতন, ছুটি বা সময় সম্পর্কে প্রশ্ন করা বুদ্ধিমানের কাজ নয়। আপনি ইন্টারভিউয়ারদের প্রশ্ন করতে পারেন এভাবে- আপনি বা আপনারা আদর্শ প্রার্থীকে কিভাবে অভিহিত করেন? ফলোআপ হিসেবে আমি আপনাদের জন্য কি করতে পারি? এখানে কাজ করে আপনি সবচেয়ে বেশী কি উপভোগ করছেন? ইত্যাদি।

১৮. মনোযোগ দেওয়া।

Dolgachov / Getty ImagesDolgachov / Getty Images

কখন একটি কথোপকথন শুনতে হবে এবং কখন কথা বলতে হবে সেইটা জানা ইন্টারভিউয়ের একটা চাবিকাঠি বলতে পারেন। আপনার ইন্টারভিউয়ের সময় কখনো ব্যঘাত সৃষ্টি করবেন না  এবং কার্যকরভাবে শোনার দক্ষতা বৃদ্ধির জন্য এই টিপস পুনর্বিবেচনা করুন।  

১৯. বিকট শব্দ হ্রাস করুন।

Jochen Sand / Getty ImagesJochen Sand / Getty Images

আপনি যদি স্কাইপে একটি চমৎকার ইন্টারভিউ দিয়ে থাকেন তাহলে একটি শান্ত পরিবেশ সৃষ্টি করুন, আপনার সংযোগ বারবার পরীক্ষা করুন এবং কোলাহল মুক্ত হওয়ার জন্য হেডফোন ব্যবহার করুন।   

২০. এটাকে ব্যক্তিগত বানান।

Mitrija / Getty ImagesMitrija / Getty Images

এই ডিজিটাল যুগে, ই-মেইলের মত সাধারণ ডাক ব্যবস্থা দ্বারা কিছু পাওয়া  বিস্ময়কর ব্যাপার। ইন্টারভিউয়ের সময় আপনি রেফারেন্স হিসেবে একটি হাসি বা ইন্টারভিউয়ার সম্পর্কে কিছু নির্দিষ্ট বিষয় উল্লেখ করুন, যার জন্য তাঁরা আপনাকে মনে রাখবে এবং প্রশংসা করবে।   

বাজফিড থেকে অনুদিত।

Share This Post